Bahumatrik | বহুমাত্রিক

সরকার নিবন্ধিত বিশেষায়িত অনলাইন গণমাধ্যম

চৈত্র ২৯ ১৪৩০, রোববার ১৪ এপ্রিল ২০২৪

বিকেলের মধ্যে বেতন না দিলে ট্রেন চলাচল বন্ধের ঘোষণা

বহুমাত্রিক ডেস্ক

প্রকাশিত: ১১:৫৯, ২০ ফেব্রুয়ারি ২০২৪

প্রিন্ট:

বিকেলের মধ্যে বেতন না দিলে ট্রেন চলাচল বন্ধের ঘোষণা

ফাইল ছবি

লালমনিরহাটে ট্রেন না চালানোর ঘোষণা দিয়েছেন বাংলাদেশ রেলওয়ের পশ্চিমাঞ্চলের লালমনিরহাট সেকশনে লোকো সেডের রানিং কর্মচারীরা। মঙ্গলবার  বিকেল ৪টার মধ্যে জানুয়ারি মাসের বেতন না পেলে রাত ১টা থেকে ট্রেন না চালানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তারা।

তাদের একটাই দাবি, নির্ধারিত সময়ে বেতন দিন, নইলে ট্রেন বন্ধের ঘোষণা বাস্তাবায়ন হবে।সকালে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন লালমনিরহাট বিভাগের ব্যবস্থাপক আব্দুস সালাম।

জানা যায়, সোমবার লোকো রানিং কর্মচারীদের বাংলাদেশ রেলওয়ের লালমনিরহাট বিভাগের ঊর্ধ্বতন উপসহকারী প্রকৌশলীকে (ইনচার্জ-লোকো) লালমনিরহাট লোকোসেডের সব লোক রানিং কর্মচারীর পক্ষে ১৩ জন স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে বিষয়টি জানানো হয়।

ওই চিঠিতে বলা হয়, সব রানিং কর্মচারীরা আপনার (ইনচার্জ-লোকো) মাধ্যমে সংশ্লিষ্ট প্রশাসনকে অবগত করছি যে, ২০২৪ সালের জানুয়ারি মাসের নিয়মিত বেতন এখন পর্যন্ত দেয়া হয়নি। নির্ধারিত সময়ে বেতন না হলে দ্রব্যমূল্যের এ বাজারে পরিবারের ব্যয় ও ট্রেনে কাজের জন্য প্রয়োজনীয় খরচের জোগান দেয়া সম্ভব নয়। যার ফলে রানিং কর্মচারীরা মানসিকভাবে বিপর্যস্ত, আতঙ্কিত ও হতাশাগ্রস্ত। এই অবস্থায় ট্রেনে কাজ করতে গেলে যে কোনো ধরনের দুর্ঘটনা ঘটতে পারে।

এমতাবস্থায় অর্জিত মাইলেজসহ রানিং সেড ম্যানুয়াল ও সংস্থাপনিক কোডের বিধি মোতাবেক যথা নিয়মে লোকে রানিং স্টাফদের জানুয়ারি মাসের নিয়মিত পূর্ণাঙ্গ বেতন ১৯ ফেব্রুয়ারির মধ্যে পরিশোধ করা না হলে প্রত্যেক রানিং কর্মচারী নিজ নিজ কর্তব্য পালন থেকে বিরত থাকবে। যা গত ১৪ ফেব্রুয়ারি এক্সএক্সআর মেসেজের মাধ্যমে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়। কিন্তু এখনো আমরা লোকো রানিং কর্মচারীরা বেতন পাইনি, যা অত্যন্ত হতাশাজনক। তাই পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী প্রত্যেক লোকো রানিং কর্মচারীগণ ২০ ফেব্রুয়ারি রাত ১টা থেকে নিজ নিজ কর্ম থেকে বিরত থাকবে মর্মে আপনার মাধ্যমে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ বরাবর অবগত করছি।

বাংলাদেশ রেলওয়ের রানিং স্টাফ ও শ্রমিক কর্মচারী ইউনিয়নের (লালমনিরহাট) সাধারণ সম্পাদক আবু রায়হান জানান, ১৯ ফেব্রুয়ারি দিবাগত রাত ১২টা ১ মিনিট থেকে ট্রেন না চালানোর সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছিল। কিন্তু পরবর্তীতে রাতের শেষ সময়ে রেলওয়ে কর্তৃপক্ষের আশ্বাসে সেই সিদ্ধান্ত থেকে একদিনের জন্য আমরা সরে এসেছি। কর্তৃপক্ষ জানিয়েছেন মঙ্গলবার (২০ ফেব্রুয়ারি) বিকেল ৪টার মধ্যে আমাদের জানুয়ারি মাসের বেতন পরিশোধ করবেন। যদি না করেন তবে ২০ ফেব্রুয়ারি দিবাগত রাত ১২টা ১ মিনিট (২১ ফেব্রুয়ারি) থেকে আমরা কর্মবিরতিতে যাব।

বাংলাদেশ রেলওয়ের লালমনিরহাট বিভাগীয় ব্যবস্থাপক আব্দুস সালাম জানান, কন্ট্রোলের মাধ্যমে সব জায়গায় জানিয়ে দেয়া হয়েছে লালমনিরহাটে ফুল বেতন হবে। আর পাকশীতে হবে। আজ না হলে কাল সবাই বেতন পাবেন। কিন্তু এটার জন্য ট্রেন বন্ধ করা যাবে না। বিষয়টি রাষ্ট্র ভালোভাবে দেখবে না।

Walton Refrigerator Freezer
Walton Refrigerator Freezer