Bahumatrik | বহুমাত্রিক

সরকার নিবন্ধিত বিশেষায়িত অনলাইন গণমাধ্যম

ফাল্গুন ১৮ ১৪৩০, শনিবার ০২ মার্চ ২০২৪

নারী শিক্ষা নিষিদ্ধের কারণে জনগণের সঙ্গে সরকারের দূরত্ব বাড়ছে : তালেবান

বহুমাত্রিক ডেস্ক

প্রকাশিত: ১৩:১৪, ৮ ডিসেম্বর ২০২৩

আপডেট: ১৩:১৫, ৮ ডিসেম্বর ২০২৩

প্রিন্ট:

নারী শিক্ষা নিষিদ্ধের কারণে জনগণের সঙ্গে সরকারের দূরত্ব বাড়ছে : তালেবান

ফাইল ছবি

আফগানিস্তানের তালেবান-নিযুক্ত উপপররাষ্ট্রমন্ত্রী শের মোহাম্মদ আব্বাস স্তানিকজাই বলেছেন, তালেবানদের থেকে জনসাধারণের দূরত্বের প্রধান কারণ হচ্ছে— নারী শিক্ষার ওপর সরকারের নিষেধাজ্ঞা।তালেবান-নিযুক্ত আফগানিস্তানের উপপররাষ্ট্রমন্ত্রী এসব কথা বলেন। খবর টোলো নিউজের। 

শিক্ষার্থীদের একটি স্নাতক সমাপনী অনুষ্ঠানে অংশ নিয়ে শের মোহাম্মদ আব্বাস স্তানিকজাই ষষ্ঠ শ্রেণির পর মেয়ে শিক্ষার্থীদের জন্য পুনরায় স্কুল খোলার গুরুত্বের ওপর জোর দেন। তিনি বলেন, জ্ঞানহীন সমাজ অন্ধকার। 

তালেবানের সীমানা ও উপজাতিবিষয়ক মন্ত্রণালয় আফগান শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে পড়াশোনা করে স্নাতক ডিগ্রি অর্জন করা শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা দিতে এ অনুষ্ঠানটির আয়োজন করে। 

অনুষ্ঠানে আফগানিস্তানের উপপররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, শিক্ষা সবার অধিকার। এই যে প্রাকৃতিক অধিকার আল্লাহ ও নবী তাদের দিয়েছেন, কেউ কীভাবে তাদের কাছ থেকে এই অধিকার কেড়ে নিতে পারে? যদি কেউ এই অধিকার লঙ্ঘন করে, তবে এটি আফগান এবং দেশের জনগণের বিরুদ্ধে নিপীড়ন। সবার জন্য শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের দরজা খুলে দেওয়ার চেষ্টা করুন। আজ প্রতিবেশী ও পুরো বিশ্বের সঙ্গে আমাদের সমস্যা হচ্ছে নারী শিক্ষার কারণে। 

আফগানিস্তানের সীমানা ও উপজাতিবিষয়ক মন্ত্রী নুরুল্লাহ নুরি বলেন, প্রত্যন্ত অঞ্চলের বসবাসকারী যুবকদের স্কুলে ভর্তি করা হয়েছে। ধর্মীয় ও আধুনিক শিক্ষার মধ্যে কোনো দূরত্ব নেই বলেও মন্তব্য করেন আফগান এই মন্ত্রী। আফগানিস্তান তালেবান পুনরায় ক্ষমতায় আসার পর দেশটিতে ষষ্ঠ শ্রেণি পর্যন্ত মেয়েদের পড়ার অনুমতি দেওয়া হয়।

Walton Refrigerator Freezer
Walton Refrigerator Freezer