Bahumatrik :: বহুমাত্রিক
 
৩০ চৈত্র ১৪২৭, মঙ্গলবার ১৩ এপ্রিল ২০২১, ৪:৫৩ পূর্বাহ্ণ
মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর

ময়মনসিংহ বিভাগের উন্নয়নে ‘উন্নয়ন সাংবাদিকতায়’ জোর বিশিষ্টজনদের


০৬ মার্চ ২০২১ শনিবার, ০৬:০৩  পিএম

নিজস্ব প্রতিবেদক

বহুমাত্রিক.কম


ময়মনসিংহ বিভাগের উন্নয়নে ‘উন্নয়ন সাংবাদিকতায়’ জোর বিশিষ্টজনদের

ময়মনসিংহ: ময়মনসিংহ বিভাগের উন্নয়নকে ত্বরান্নিত করতে বিভাগের চার জেলায় কর্মরত সাংবাদকর্মীদের উন্নয়ন সাংবাদিকতার চর্চায় আরও মনযোগী হতে তাগিদ দিয়েছেন বিশিষ্টজনরা। শনিবার ‘ময়মনসিংহ বিভাগের উন্নয়নে সাংবাদিকদের ভূমিকা’ শীর্ষক আলোচনায় যোগ দিয়ে এই তাগিদ দেন অনুষ্ঠানের অতিথিরা। 

ময়মনসিংহ বিভাগী প্রেস ক্লাবের আয়োজনে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন ময়মনসিংহ সিটি করপোরেশনের মেয়র ইকরামুল হক টিটু। সিটি করপোরেশনের শাহাবুদ্দিন মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত আলোচনায় বিভাগের চার জেলার সবক’টি উপজেলার কর্মরত বিভিন্ন গণমাধ্যমের প্রতিনিধিরা এতে অংশ নেন। 

অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি সিটি মেয়র টিটু বলেন, সাংবাদিকদের ইতিবাচক ভূমিকা উন্নয়নকে বেগবান করতে সাহায্য করে। মাত্র ৫ বছর আগে যাত্রা করা ময়মনসিংহ বিভাগ বাস্তবায়িত হয়েছে বলেই আজকে অবহেলিত এই অঞ্চলের চিত্র পাল্টে গেছে। উন্নয়নের এই অগ্রযাত্রাকে এগিয়ে নিতে উন্নয়ন সাংবাদিকতা অত্যন্ত জরুরি। 

তরুণ জনপ্রিয় এই জনপ্রতিনিধি বলেন, এই বিভাগের সংকট ও সম্ভাবনার জায়গাগুলো চিহ্নিত করে প্রতিদবেদন প্রকাশের মাদ্যমে গণমাধ্যমকর্মীদের বেশি করে দৃষ্টি আকর্ষণ করতে হবে। বিভাগ বাস্বায়িত হলেও এই বিভাগে একটি মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়, একটি সাংস্কৃতিক বিশ্ববিদ্যালয়, ঢাকা-ময়মনসিংহে দ্রুতগতির ট্রেন চালু করাসহ অনেকগুলো পদক্ষেপ নেওয়া জরুরি।

মেয়র বলেন, উন্নয়নের প্রশ্নে সবাই ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে। সেইসঙ্গে উন্নয়ন প্রকল্প বাস্তবায়নে জনগণের আন্তরিক সহযোগিতা খুব জরুরি। তা না হলে সরকারি বরাদ্দ পেলেও প্রকল্প বাস্তবায়ন সম্ভব হয় না। 

সীমান্তবর্তী জনপদ হিসেবে ভারতের সঙ্গে ব্যবসা-বাণিজ্য, শিক্ষা-সংস্কৃতি, স্বাস্থ্যসেবাসহ অন্যান্য ইস্যুতে নিবিড় যোগাযোগের ওপর জোর দিয়ে অনুষ্ঠানের বিশেষ অতিথি সেন্টার ফর বাংলাদেশ-ইন্ডিয়া রিলেশনস (সিবিআইআর) এর পরিচালক শাহিদুল হাসান খোকন বলেন, এবিষয়ে দুই দেশের সীমান্তবর্তী অঞ্চলের জনপ্রতিনিধি ও কর্মকর্তাদের নিয়ে অচিরেই একটি সেমিনার আয়োজন করবে সিবিআইআর। যেখানে আমরা সংশ্লিষ্ট কর্তাব্যক্তিদের কাছে সুনির্দিষ্ট সুপারিশ তুলে দিতে পারব।

আলোচনায় বৃহত্তর ময়মনসিংহের সম্ভাবনা ও সংকটের নানাদিক তুলে ধরেন বিশেষ অতিথি বহুমাত্রিক.কম  এর প্রধান সম্পাদক আশরাফুল ইসলাম। গণমাধ্যমকর্মী হিসেবে এই অঞ্চল নিয়ে কাজ করার অতীত অভিজ্ঞতা তুলে ধরে তিনি বলেন, ‘ময়মনসিংহ বিভাগের অফুরান সম্ভাবনার এক বিরাটক্ষেত্র ব্রহ্মপুত্র অববাহিকার বিস্তীর্ণ চরাঞ্চল। আধুনিক ও গবেষণাপ্রসূত পরিকল্পিত কৃষি উৎপাদন ব্যবস্থা এসব চরাঞ্চলে ব্যাপকভাবে সম্প্রসারণ করা গেলে এক বিপ্লব ঘটে যাবে। 

‘একই সঙ্গে দ্রুত শিল্পায়ন ও নগরায়নের প্রভাবে যে দূষণ ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে, নদী-খাল বিলসহ মুক্ত জলাশয় বিনষ্ট হচ্ছে; এর প্রতিকারে কঠোর পদক্ষেপ নিতে হবে প্রশাসনকে। নীতিনির্ধারকদের এবিষয়ে আরও দায়িত্বশীল হতে হবে’-যোগ করেন আশরাফুল ইসলাম।    

ময়মনসিংহ বিভাগীয় প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম বলেন, রাজধানী ঢাকার সবচেয়ে কাছের ভারতীয় সীমান্তবর্তী বিভাগ ময়মনসিংহ। ব্যবসা-বাণিজ্যসহ নানা ক্ষেত্রে এই সীমান্তকে কাজে লাগাতে হবে। বিশেষ করে ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করা গোবড়াকুড়া-কড়ইতলী ও নাকুগাঁও বন্দরকে পূর্ণাঙ্গ বন্দর হিসেবে রূপান্তরে উভয় দেশের কর্তৃপক্ষের আন্তরিক উদ্যোগ আমরা প্রত্যাশা করি।  

ময়মনসিংহ বিভাগীয় প্রেস ক্লাবের সভাপতি এফ এম এ সালামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানের উদ্বোধক ছিলেন এফবিসিসিআই এর পরিচালক ও জয়যাত্রা টিভির চেয়ারম্যান হেলেনা জাহাঙ্গীর। 

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে ময়মনসিংহ রেঞ্জের অতিরিক্ত উপ-পুলিশ মহাপরিদর্শক ড. মোঃ আক্কাছ উদ্দিন ভুঁঞা বলেন, সংবাদকর্মীরা নবগঠিত এই বিভাগের আইনশৃঙ্খলাসহ অন্যান্য বিষয়ে যতো বেশি লিখবেন কর্তৃপক্ষ সজাগ হবেন, ব্যবস্থা নিতে পারবেন।    বিভাগীয় প্রেস ক্লাবের সহ-সভাপতি শামসুল আলম খান, কোষাধ্যক্ষ জসিম উদ্দিন আহমেদ অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন। 

আলোচনা অনুষ্ঠানে ময়মনসিংহ, নেত্রোকোনা, শেরপুর ও জামালপুরের জেলা এবং উপজেলায় কর্মরত গণমাধ্যমকর্মী, রাজনীতিক, শিক্ষাবিদ, সাংস্কৃতিককর্মীসহ বিভিন্ন শ্রেণি ও পেশার প্রতিনিধিরা অংশ নেন। 

বহুমাত্রিক.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।