Bahumatrik :: বহুমাত্রিক
 
১১ আষাঢ় ১৪২৬, বুধবার ২৬ জুন ২০১৯, ৫:৫৪ পূর্বাহ্ণ
মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর

শ্রীলংকার বিপক্ষে নির্মম হতে আহ্বান পাকিস্তানের


০৬ জুন ২০১৯ বৃহস্পতিবার, ০৮:১২  পিএম

বহুমাত্রিক ডেস্ক


শ্রীলংকার বিপক্ষে নির্মম হতে আহ্বান পাকিস্তানের

পরাজয় দিয়ে টুর্নামেন্ট শুরুর পর দ্বিতীয় ম্যাচেই জয় পাওয়া পাকিস্তান ও শ্রীলংকা আগামীকাল মুখোমুখি হবে বিশ্বকাপের একাদশ ম্যাচে। টুর্নামেন্টে উভয় দলেরই এটি হবে তৃতীয় ম্যাচ।

স্বাগতিক ও ফেবারিট ইংল্যান্ডকে হারানোর পর শ্রীলংকার বিপক্ষে নিষ্ঠুর হতে নিজ দলের প্রহিত আহ্বান জানিয়েছেন পাকিস্তান কোচ মিকি আর্থার। ট্রেন্ট ব্রিজে নিজেদের প্রথম ম্যাচে ওয়েস্ট ইন্ডিজের কাছে যাচ্ছেতাইভাবে পরাজিত হওয়ার মাত্র তিন দিন পর একই ভেন্যুতে ফেবারিট ইংল্যান্ডকে ১৪ রানে হারায় আনপ্রেডিক্টেবল পাকিস্তান।
যার মধ্য দিয়ে টানা ১১ ওয়ানডে ম্যাচে পরাজয়ের বৃত্ত থেকে বেড়িয়ে আসতে সক্ষম হয় উপমহাদেশের দলটি।

টুর্নামেন্টে নিজেদের প্রথম ম্যাচে পরাজয়ের পর এভাবে ঘুড়ে দাঁড়ানোয় দলের প্রশংসা করেন আর্থার। বার্তা সংস্থা এএফপিকে আর্থার বলেন, ‘এমন বিশ্বাস ও তীব্রতা নিয়ে খেলতে দেখাটা সত্যিই আনন্দের, যা আমরা আগেই বলেছিলাম।’

‘আমরা জানি আমাদের তিন বিভাগ একত্রে জ্বলে উঠলে আমরা যে কোন দলকে হারাতে পারি। এখন আমাদের ধারাবাহিক ও নির্মম হতে হবে।’ ইংল্যান্ডের শক্তিশালী বোলিং আক্রমণের বিপক্ষে অভিজ্ঞ মোহাম্মদ হাফিজ, বাবর আজম এবং সরফরাজ আহমেদের হাফ সেঞ্চুরিতে পাকিস্তান ৮ উইকেটে ৩৪৮ রান করে।

জবাবে পেসার ওয়াহাব রিয়াজ ও মোহাম্মদ আমির এবং লেগ স্পিনার সাদাব খানের বোলিং নৈপুণ্যে ইংল্যান্ডেকে ৫০ ওভারে ৩৩৪/৯ আটকে দেয় পাকিস্তান। আর্থার বলেন, ‘বাজেভাবে শুরু করার পর ভাল ব্যাটিং করার জন্য ছেলেদের ক্ষুধা ও একাগ্রতা, বোলারদের কঠিন লড়াই আপনারা দেখেছেন। সুতরাং সামনের ম্য্যাচগুলোতেও ভাল করার করার এটার পুনরাবৃত্তি ঘটাতে হবে।’

১৯৭৫ সালে বিশ্বকাপ শুরু হওযার পর এ পর্যন্ত শ্রীলংকার বিপক্ষে সাত ম্যাচে মুখোমুখি হওয়া সব ক’টিতেই জয়ী হয়েছে পাকিস্তান। গত শনিবার কার্ডিফে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ১০ উইকেটে পরাজিত হওয়া ম্যাচে ফাস্ট বোলিংয়ে শ্রীলংকা দলের দুর্বলতা ছিল চোখে পড়ার মত। তাই আগামীকালের ম্যাচে ফাস্ট বোরার মোহাম্মদ হাসনাইনকে দলে রাখার চিন্তা করছে পাকিস্তান।

বৃষ্টি বিঘিœত ম্যাচে শনিবার কার্ডিফে আফগানিস্তানকে পরাজিত করেছে শ্রীলংকা। যা টুর্নামেন্টে তাদের শ্বাস নেয়ার রসদ যুগিয়েছে। তবে লংকান দলটির জন্য ভাবনার বিষয় হচ্ছে মিডল অর্ডারের ব্যাটিং ব্যর্থতা। নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচে ১৪ রানে পাঁচ ও আফগানিস্তান ম্যাচে ৩৬ রানে ৭ উইকেট হারিয়েছে ১৯৯৬ বিশ্বকাপ চ্যাম্পিয়নরা।
শ্রীলংকা কোচ চন্ডিকা হাথুরুসিংহে বলেছেন, তিনি তার ব্যাটসম্যানদের ভাল করার তাগিদ দিয়েছেন।

তিনি বলেন, ‘আমি তাদের কটু কথা বলিনি। তাদেরকে সত্যি কথাটা বলেছি, এটাই যথেষ্ট।’ আফগান্তিানের বিপক্ষে ৭৮ রান করা কুসল পেরেরার প্রশংসা করে হাথুরু বলেন, ‘আমি বলেছি কি করতে হবে। তারা সেটা করেছে এবং ভাল করেছে। কুসল একজন অবিশ্বাস্য খেলোয়াড়। যেভাবে খুশি ব্যাটিং করার স্বাধীনতা আমরা তাকে দিয়েছি। আমরা জানি অধিকাংশ সময়ই তিনি একজন ম্যাচ উইনার খেলোয়াড়।’

বহুমাত্রিক.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।