Bahumatrik :: বহুমাত্রিক
 
১ কার্তিক ১৪২৮, রবিবার ১৭ অক্টোবর ২০২১, ১:২৭ পূর্বাহ্ণ
মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর

প্রতিরক্ষা খাতে নিট রপ্তানিকারক হতে পারে ভারত: রাজনাথ


২৯ সেপ্টেম্বর ২০২১ বুধবার, ০১:১১  এএম

India News Network


প্রতিরক্ষা খাতে নিট রপ্তানিকারক হতে পারে ভারত: রাজনাথ

ভারতের প্রতিরক্ষা রপ্তানি গত সাত বছরে প্রায় আটত্রিশ হাজার কোটি রুপি ছাড়িয়েছে

ভারত শিগগিরই প্রতিরক্ষা খাতে নিট রপ্তানিকারক হয়ে উঠতে পারে এবং বিশ্বজুড়ে সামরিক বাহিনীর ক্রমবর্ধমান চাহিদা পূরণ করতে পারে বলে মন্তব্য করেছেন ভারতীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিং। ২৮ সেপ্টেম্বর, মঙ্গলবার, নয়াদিল্লিতে সোসাইটি অব ইন্ডিয়ান ডিফেন্স ম্যানুফ্যাকচারার্স (এসআইডিএম) এর বার্ষিক সাধারণ সভায় ভাষণ দেয়ার সময় এসব মন্তব্য করেন রাজনাথ।

বর্ষীয়ান এই নেতা বলেন, “ভারতীয় প্রতিরক্ষা শিল্পের নির্মাতা ও প্রস্তুতকারকগণ সাশ্রয়ী, নিখুঁত এবং বিশ্বমানের প্রতিরক্ষা সামগ্রী তৈরী করেন। এটি একদিকে যেমন আমাদের জাতীয় নিরাপত্তাকে বর্ধিত করে, অন্যদিকে ভারতকে একটি নিট ডিফেন্স রপ্তানিকারক দেশ হিসেবে গড়ে তুলবে।”

রাজনাথ বলেন, “বিশ্বজুড়ে বর্তমানে প্রতিটি রাষ্ট্র নিজেদের সামরিক বাহিনীর আধুনিকায়নে মনযোগ দিয়েছে। নিরাপত্তা নিয়ে উদ্বেগ, সীমান্ত বিরোধ এবং সামুদ্রিক আধিপত্য বিস্তারের প্রতিযোগিতার কারণে সামরিক সরঞ্জামের চাহিদা দ্রুত বৃদ্ধি পাচ্ছে। ভারত সাশ্রয়ী এবং মানসম্মত পদ্ধতির প্রতিরক্ষা সামগ্রীর মাধ্যমে এই চাহিদা পূরণ করতে সক্ষম। এখানে পাবলিক, প্রাইভেট এবং রিসার্চ এন্ড ডেভেলপমেন্ট সেক্টরের সম্মিলিত প্রয়াস প্রয়োজন পড়বে।”

ইতোমধ্যে ভারত বিভিন্ন মডেলের যুদ্ধবিমান, হেলিকপ্টার, ট্যাঙ্ক এবং সাবমেরিন তৈরীর মেগা প্রকল্প শুরু করেছে বলে জানান রাজনাথ সিং। এখানে বেসরকারী কোম্পানী সমূহের অংশগ্রহণ ভবিষ্যতে তাদেরকে বৈশ্বিক জায়ান্ট হতে সাহায্য করবে বলেও অভিমত দেন তিনি। সম্প্রতি এয়ারবাসের সঙ্গে ৫৬টি সামরিক উড়োজাহাজ ক্রয়ের চুক্তির প্রসঙ্গেও আলোচনা করেন তিনি। রাজনাথ জানান, ভারতের প্রতিরক্ষা রপ্তানি গত সাত বছরে প্রায় আটত্রিশ হাজার কোটি রুপি ছাড়িয়েছে।

প্রয়োজনীয় প্রতিরক্ষা সামগ্রী ক্রয়-বিক্রয়ে দেশীয়করণের গুরুত্ব তুলে ধরে আত্মনির্ভর ভারত গড়তে নিজেদের পূর্ব অঙ্গীকার পুনর্ব্যক্ত করেন তিনি। এসময়, উদাহরণ স্বরূপ, আইডেক্স, টিওটি, ডিআরডিও সহ প্রভৃতি সংস্থা ও বিষয়ের উৎকর্ষ সাধনের কথা তুলে ধরেন তিনি। পাশাপাশি এসব সেক্টরে স্টার্ট-আপ, উদ্ভাবন কর্মসূচী এবং গবেষণার প্রয়োজনীয়তার কথাও বর্ণনা করেন তিনি।

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি সামরিক বাহিনীর উৎকর্ষ সাধনে মনযোগ দিয়েছে ভারত। বিমান, নৌ এবং সেনাবাহিনীর আধুনিকায়নে প্রচুর অর্থ ব্যয় করছে নরেন্দ্র মোদীর সরকার। সম্প্রতি ফ্রান্সের বিমান নির্মাতা সংস্থা এয়ারবাসের সঙ্গে ২২ হাজার কোটি রুপি বা ৩০০ কোটি ডলারের চুক্তি করেছে ভারত। এ চুক্তির আওতায় এয়ারবাসের সি২৯৫ মডেলের ৫৬টি উড়োজাহাজ ক্রয় করবে দিল্লি। ভারতীয় বিমানবাহিনীর বহরে যুক্ত হবে এসব উড়োজাহাজ। চুক্তির আওতায় আগামী চার বছরের মধ্যে ১৬টি উড়োজাহাজ ভারতে পাঠাবে এয়ারবাস। বাকি ৪০টি উড়োজাহাজ ভারতে টাটা অ্যাডভান্সড সিস্টেম লিমিটেডের কারখানায় নির্মাণ করবে এয়ারবাস।

বহুমাত্রিক.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।