Bahumatrik :: বহুমাত্রিক
 
৬ আশ্বিন ১৪২৫, শনিবার ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৬:২১ পূর্বাহ্ণ
Globe-Uro

নামযজ্ঞ থেকে উঠিয়ে নিয়ে নিয়ে স্কুল ছাত্রীকে গণধর্ষণ


০৪ মার্চ ২০১৮ রবিবার, ০১:১৭  এএম

নিজস্ব প্রতিবেদক

বহুমাত্রিক.কম


নামযজ্ঞ থেকে উঠিয়ে নিয়ে নিয়ে স্কুল ছাত্রীকে গণধর্ষণ

খুলনা : জেলার দাকোপ উপজেলার লাইডোব এলাকায় নামযজ্ঞ অনুষ্ঠান থেকে তুলে নিয়ে এক নাবালিকাকে (১২) ধর্ষণ করা হয়েছে। স্থানীয় জনতা এক ধর্ষককে আটক করে পুলিশে দিয়েছে।

শুক্রবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। অসুস্থ্য ওই নাবালিকাকে প্রথমে দাকোপ হাসপাতালে ও পরে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ওই মেয়েটি বাজুয়া ইউনিয়নের চরকুড়ি গ্রামে মামা বাড়িতে থাকত।

ধর্ষণের শিকার ওই মেযেটির মামা উমা শঙ্কর রায় জানান, আমার ভাগ্নি শুক্রবার রাতে নামযজ্ঞ শুনতে যায়। সেখান থেকে এলাকা বখাটে বলে পরিচিত রফিকুল ইসলামসহ আরও কয়েকজন যুবক মিলে তাকে অপহরণ করে নিয়ে যায়। সংবাদ পেয়ে আশপাশের এলাকায় খোজাখুজির পর রক্তাক্ত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করা হয়। ধর্ষককে আটক করে স্থানীয় চেয়ারম্যানের জিম্মায় দেয়া হয়। পরে পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ রপিকুল ইসলামকে থানায় নিয়ে যায়।

দাকোপ উপজেলার বাজুয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রঘুনাথ রায় জানান, বাজুঁয়ার পাশ্ববর্তি লাউডোব বাজারের নামযজ্ঞ অনুষ্ঠান চলছিল। সেখানে চুনকুড়ি গ্রামের উমা শঙ্কর রায়ের ভাগ্নিও নামযজ্ঞ শুনতে যায়। সেখান থেকে ওই এলাকার মৃত ওমর গাজীর ছেলে রফিকুল ইসলাম গাজী (৩২) সহ আরও ৩/৪ জন যুবক তাকে কৌশলে তুলে নিয়ে যায়। স্থানীয়রা সেটি জানতে পেরে পার্শ্ববর্তি একটি বাগান থেকে মেয়েটিকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে দাকোপ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে সেখান থেকে উন্নত চিকিৎসার জন্য খুলনা মেডিকেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

দাকোপ থানার উপ-পরিদর্শক মোঃ আব্দুল হাকিম জানান, ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। ওই মেয়েটির স্বজনদের সাথে কথা বলেছি। গণধর্ষণের কোন স্পস্টতা পাওয়া যায়নি। মেডিকেল রিপোর্ট তেকে বিষয়টি জানা যাবে। তিনি বলেন,ধর্ষণের অভিযোগে রফিকুল ইসলামকে পুলিশ হেফাজতে নেয়া হয়েছে। এ ঘটনায় মেয়েটির অভিভাবকরা মামলা করবে ।

বহুমাত্রিক.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।